হোয়াটসঅ্যাপের নতুন টুল ব্যবহারে সাবধান

0

তথ‌্যপ্রযু‌ক্তি ডেস্ক:

রিপোর্ট চ্যাট স্প্যামাররা সাবধান! এবার কোনও রিপোর্ট হওয়া ইনডিভিজুয়াল বা গ্রুপ চ্যাটকে আরও বিশদে পর্যালোচনা করবে হোয়াটসঅ্যাপ। কারণ এই চ্যাটিং প্ল্যাটফর্ম নিয়ে আসছে একটি নতুন রিপোর্ট চ্যাট টুল। ওয়াবেটা ইনফোর তরফে সম্প্রতি এমনই তথ্য উঠে এসেছে।

সাধারণত যখন ব্যবহারকারীরা হোয়াটসঅ্যাপে কোনও স্প্যামার বা অ্যাবিউজার সম্পর্কে রিপোর্ট করেন, তখন য়াটসঅ্যাপ অন্যান্য ব্যবহারকারীর থেকে পাওয়া রিপোর্ট ও কিছু আনুষঙ্গিক বিষয়ের উপরে নির্ভর করে অভিযোগটি পর্যালোচনা করে। কারণ এন্ড-টু-এন্ড এন্ডক্রিপশন সিস্টেম অনুযায়ী কোনও ব্যক্তিগত চ্যাটে প্রবেশের অধিকার থাকে না।

কিন্তু এ বার এই নতুন ফিচারটি পথ দেখাবে। এক্ষেত্রে কোনও ব্যবহারকারী রিপোর্ট করার পর সংশ্লিষ্ট স্প্যামারের মেসেজ বা চ্যাটের মেসেজগুলোতে প্রবেশ করে তা পর্যালোচনা করার সুযোগ পাবে হোয়াটসঅ্যাপ। সম্প্রতি হোয়াটসঅ্যাপের বেটা অ্যানড্রয়েড ভা২.২০.২০৬.৩ ভার্সনে দেখা গেছে এই ফিচারটি। জেনে নিন কী ভাবে কাজ করবে এটি।

এক্ষেত্রে হোয়াটসঅ্যাপে কোনও কনট্যাক্ট বা গ্রুপকে নিয়ে রিপোর্ট করতে হলে ব্যবহারকারীদের প্রথমে একটি চ্যাট খুলতে হবে। এর পর সংশ্লিষ্ট চ্যাটের নেম অপশনে ক্লিক করতে হবে। এ বার নিচের দিকে ‘রিপোর্ট’ অপশনটি পেয়ে যাবেন ব্যবহারকারীরা।

এই ‘রিপোর্ট’ অপশনে ক্লিক করেই নির্দিষ্ট কোনও কনট্যাক্ট অর্থাৎ ব্যক্তির বিরুদ্ধে রিপোর্ট করতে পারবেন ব্যবহারকারীরা। হোয়াটসঅ্যাপে র সেটিংস অপশনেও গিয়েও এই কাজ করা যাবে। এ ক্ষেত্রে হোয়াটসঅ্যাপের সেটিংস থেকে প্রথমে হেলপ সেকশনে যেতে হবে। তারপর কন্টাক্ট আস অপশনে গিয়ে সরাসরি নিজেদের কথা বা অভিযোগ জানাতে পারবেন ব্যবহারকারীরা।

তবে হোয়াটসঅ্যাপের বেটা অ্যানড্রয়েড ভার্সন ২.২০.২০৬.৩ ভার্সনে যখন ‘রিপোর্ট’ অপশনটি সিলেক্ট করবেন ব্যবহারকারীরা, তখন টেক্সটগুলো পড়তেও পারবেন তারা। কারণ যাচাইয়ের জন্য ওই গ্রুপ বা ব্যক্তি বিশেষের সদ্য পাঠানো মেসেজগুলো হোয়াটসঅ্যাপে ফরওয়ার্ড হয়ে যাবে। এক্ষেত্রে ব্যবহারকারীরা যদি হোয়াটসঅ্যাপের সঙ্গে মেসেজ শেয়ার করতে চান, তা হলে প্রথমে একটি মেসেজ পাবেন তারা।

এটি হল- হোয়াটসঅ্যাপ নেভার রিসিভ ইউর ম্যাসেজ উইথআউট ইউর পারমিশন। এ বার আপনি যদি সত্যিই কোনও কনট্যাক্ট রিপোর্ট করতে চান, তা হলে যে কনট্যাক্টের বিরুদ্ধে রিপোর্ট করছেন, তার সদ্য চ্যাটগুলোর একটি কপি ফরওয়ার্ড করতে হবে হোয়াটসঅ্যাপের। এর পর হোয়াটসঅ্যাপের সাহায্যে ওই নির্দিষ্ট চ্যাটটি ব্লক ও ডিলিট করা যাবে।

ওয়াবেটা ইনফোর তরফে জানানো হয়েছে, হোয়াটসঅ্যাপ বিজনেস অ্যাকাউন্ট থেকেও এই ফিচারের সাহায্যে মেসেজ রিপোর্ট করা যেতে পারে আর সাসপেন্ড করা যেতে পারে নির্দিষ্ট অ্যাকাউন্ট। আইওএস ভার্সনেও শিগগিরই আসতে চলেছে এই ফিচার। তবে সাধারণ ব্যবহারকারীদের জন্য কবে থেকে এই ফিচার পাওয়া যাবে, তা এখনও জানা যায়নি।

%d bloggers like this: