ঢাকা ২৮.৯৯°সে ১৩ই জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

রোয়াংছড়িতে অগ্নিকাণ্ডে ক্ষতিগ্রস্তদের পাশে জেলা প্রশাসন, সেনাবাহিনী ও রেড ক্রিসেন্ট

 ১৮ মে মঙ্গলবার দিবাগত রাত ১ টায় বান্দরবান জেলার রোয়াংছড়ি উপজেলার তারাছা ইউনিয়নের অন্তর্গত তালুকদার পাড়ায় অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে।
পাড়ায় অবস্থিত ৮৯ টি বাড়ির মধ্যে ৭০ টি বাড়ি সম্পূর্ণরুপে পুড়ে ছাই। পাড়াটি দূর্গম পাহাড়ের ভেতর এবং মাঝে  নোয়াপতং খাল থাকায়  অনেক চেষ্টা করেও পৌঁছাতে পারেনি ফায়ার সার্ভিস।
সে সময় গভীর রাতে সেখানে গিয়ে হাজির হয় সেনাবাহিনী। অগ্নিনির্বাপণে পাড়াবাসির সাথে অংশ নেয় বান্দরবান  সেনা সদস্যরা।
এরিয়া কমান্ডার, চট্টগ্রাম এরিয়া এবং জিওসি ২৪ পদাতিক ডিভিশনের পক্ষ থেকে রিজিয়ন কমান্ডার, বান্দরবান রিজিয়ন নিজে উপস্থিত থেকে অগ্নি দূর্গতদের হাতে ৫০০০ টাকার অনুদান এবং চাল, ডাল, তেল, লবন, বিশুদ্ধ পানি, পিয়াজসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় খাদ্যসামগ্রী তুলে দেন। তাছাড়া এই সময়, সেনা জোনের পক্ষ থেকে তাদের জন্য প্যাক লাঞ্চ ও সরবরাহ করা হয়।
এই সময় রিজিয়ন কমান্ডার এই দূর্যোগ পরিস্থিতি দেখে শোক প্রকাশ করেন।
সেনাবাহিনীর এমন মানবিক সহায়তায় অত্যন্ত খুশি পাড়াবাসী। পাড়ার কারবারি সহ ও গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ রিজিয়ন কমান্ডার ও সেনা জোনকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন।
এদিকে গভীর রাতে অগ্নিকান্ডের খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌছেন জেলা প্রশাসনের কর্মকর্তাগণ। অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক লুৎফর রহমান, রোয়াংছড়ি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা, প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা উপস্থিত থেকে জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে নগদ ৩০০০ টাকা তুলে দেন।
সাথে সাথে রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটির সেক্রেটারী অমল কান্তি দাশ রেড কর্মীদের নিয়ে নিত্য প্রয়োজনীয় ব্যবহার্য সামগ্রী, খাদ্যদ্রব্য সহায়তা দিতে দেখা গেছে।
রোয়াংছড়ি উপজেলা চেয়ারম্যান চহাই মং মারমা গভীর রাতে খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে উপস্থিত হন। অগ্নি নির্বাপনে সার্বিক সহযোগিতা করেন। পাড়ার পাশে শান্তি শৃঙ্খলায় থাকা অস্থায়ী পুলিশ ক্যাম্পের সদস্যদের অগ্নিনির্বাপনে সার্বিক সহায়তা করতে দেখা গেছে। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত তারাছা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সহ স্থানীয় বিভিন্ন এনজিও সংস্থার পক্ষ হতে সহায়তা করতে দেখা যাচ্ছে। তাৎক্ষনিক মেডিকেল টীমের ওষুধ সেবা অব্যাহত রয়েছে। রাতে ঘুমানোর জন্য মশারী ও তেরপাল ও তাঁবু ব্যবস্থা করা হচ্ছে।




আপনার মতামত লিখুন :

এক ক্লিকে বিভাগের খবর