পাবনায় হেযবুত তাওহীদের উদ্যোগে সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ বিরোধী সমাবেশ-গোলাম ফিরুক প্রিন্স

0

পাবনা প্রতিনিধি:

পাবনা জেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক গোলাম ফারুক প্রিন্স এমপি বলেছেন- ইসলাম শান্তির ধর্ম এর একটি সোনালী অতীত রয়েছে। এই ধর্মের কিছু অপব্যাখ্যা দিয়ে তারা যেমন নিজেরা ক্ষতি গ্রস্থ হচ্ছে পাশাপাশি ইসলাম ধর্মের ও রাষ্ট্রের ক্ষতি করছে। বিশেষ করে বিভিন্ন মতবাদ ইসলাম ধর্মের ক্ষতি করছে। আমাদের নবী রাসুলদের শান্তি উদারতা এবং মহানুভবতার মধ্যদিয়ে ইসলাম ধর্মের প্রসার ঘটছে। বাংলাদেশে ৯০ ভাগ মানুষ মসুলমান এখানে জিহাদের কোন প্রয়োজন নাই। বাংলাদেশের মানুষ ধর্ম ভিরু এবং শান্তি প্রিয় এদেরকে কোরআন এবং হাদিসের আলোকে বুজালেই যতেষ্ঠ কোন প্রকার জিহাদ ,জঙ্গিবাদ ও সন্ত্রাসবাদের প্রয়োজন নাই। বাংলাদেশে জঙ্গিরা বিদেশী ও অন্যধর্মাবলম্বীদের হত্যা করছে যা মহাপাপ। জামাত জঙ্গিবাদকে পৃষ্টপোষকতা করছে। এদের ব্যাপারে সজাগ থাকতে হবে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ইসলামের শত্রুদের বিরোদ্ধে জোরালো ভুমিকা রাখছে। জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে আলেম সমাজকে গুরুত্বপুর্ণ ভুমিকা রাখতে হবে। সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে।বাংলাদেশে জঙ্গিবাদ মতবাদ হাস্যকর।

রবিবার দুপুরে পাবনা রফিকুল ইসলাম বকুল পৌর মিলনায়তনে হেযবুত তওহীদ এর আয়োজনে সন্ত্রাস জঙ্গিবাদ ও সাম্প্রদায়িকতার বিরুদ্ধে জনসচেতনা সৃষ্টির লক্ষে আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

মুখ্য আলোচক হেযবুত তওহীদ এর এমাম হোসাইন মোহম্মদ সেলিম এবং পাবনা জেলা সভাপতি শামসুজ্জামান মিলন এর সভাপতি আরোও বক্তব্য রাখেন পাবনা জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান রেজাউল রহিম লাল, পাবনা আলিয়া মাদ্রাসার অধ্যক্ষ মাওলানা মো. আনসারুল্লাহ, সাবেক ভাঙ্গুড়া পৌর মেয়র আব্দুর রহমান প্রধান, সদর উপজেলা পরিসদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান শামসুন নাহার রেখা, জেলা যুবলীগ সভাপতি শরিফ উদ্দিন প্রধান, জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি মোস্তাফিজুর রহমান সুইট, মাহাতাব উদ্দিন, মো. রমজান আলী প্রমুখ।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে রেজাউল রহিম লাল বলেন-আওয়ামীলীগ ইসলাম প্রসাওে ব্যাপক কাজ করছে। বঙ্গবন্ধু এবং শেখ হাসিনা সাচ্চা মুসলিম। বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলায় জঙ্গিবাদেও ঠাই নাই। জঙ্গিবাদেও বিরুদ্ধে সামাজিক আন্দোলন শুরু হয়ে গেছে।

এসময় হেজবুত তওহীদের এই সন্ত্রাস জঙ্গিবাদ বিরোধী সমাবেশ অনুষ্ঠানে বিভিন্ন স্থান থেকে আগত সরকারি-বেসরকারি জনপ্রতিনিধি,সাংবাদিক,নারী-পুরুষ অংশগ্রহণ করেন।

%d bloggers like this: