ঢাকা ২৯.৯৯°সে ১২ই জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

আজ সেই ভয়াবহ ৫ই মে

২০১৩ সালের ৫ মে হেফাজতে ইসলামের ঢাকা অবরোধ ও বিক্ষোভ কর্মসূচিতে রণক্ষেত্রে পরিণত হয় রাজধানীর মতিঝিল, পল্টন, গুলিস্তান, বিজয়নগর এলাকা।

সেদিন ভোর থেকেই রাজধানীর প্রবেশপথগুলোর দখল নেয় সংগঠনটির নেতাকর্মীরা। গাবতলী বাস টার্মিনাল, টঙ্গী, কাঁচপুর ব্রিজসহ রাজধানীকে ঘিরে ছয়টি প্রবেশমুখেই অবস্থান নেয় কওমি মাদরাসার হাজার হাজার ছাত্র, শিক্ষক ও ইসলাম প্রিয় মানেুষেরা।

এতে সারাদেশে ব্যাপক অস্বস্তি নেমে আসে। বিভিন্ন ব্যবসা প্রতিষ্ঠান এবং ব্যাংকের বুথে আগুন দেয়া, লুটপাট ও সড়কের মাঝের শত শত গাছ উপড়ে ফেলা হয়। ফুটপাতের শত শত বইয়ের দোকানও পুড়িয়ে দেয়া হয়।

পুলিশের সঙ্গে দিনভর ধাওয়া-পাল্টাধাওয়ার ঘটনা ঘটে। দেশের বিভিন্ন স্থানেও শুরু হয় ব্যাপক সহিংসতা। আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর অভিযানের মধ্য দিয়ে তাদের অবস্থান কর্মসূচির অবসান ঘটে।

পুলিশ সূত্রে জানা যায়, রাজধানীর মতিঝিলের শাপলা চত্বরে ২০১৩ সালের ৫ মে ব্যাপক সহিংসতা ও তাণ্ডব চালায় হেফাজতে ইসলাম। আর এ ঘটনায় দায়ের মামলাগুলোতে বিএনপি-জামায়াতের সম্পৃক্ততার দালিলিক প্রমাণ পেয়েছে পুলিশ।

আট বছর আগে মতিঝিল শাপলা চত্বরে হেফাজতে ইসলামের ওই ভয়াবহ তাণ্ডবের ঘটনায় করা মামলাগুলোর তদন্ত প্রায় শেষ। ৭০টি মামলার মধ্যে ১৬টির অভিযোগপত্র দেয়া হয়েছে। পুলিশ জানিয়েছে, বাকীগুলোরও অভিযোগপত্র দেয়া হবে শিগগিরই।




আপনার মতামত লিখুন :

এক ক্লিকে বিভাগের খবর