ঢাকা ২৯.৯৯°সে ১৪ই জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
শিরোনাম :
মোবাইল টাওয়ারে তিনদিন আটকে থাকা চিল উদ্ধার করল ফায়ার সার্ভিস নামাজের মাধ্যমে মিলবে শান্তি, আমরা শান্তির পতাকা উড়াতে চাই সিলেটের আইনজীবীকে ১০ টি ট্যাবলেট খাইয়ে হত্যার দায় স্বীকার স্ত্রীর মুক্তিযোদ্ধারাই জানে না মুক্তিযোদ্ধা স্মৃতি সৌধ নির্মাণের খবর ডোমারে পুকুর খননের সময় পেল কৃষ্ণ মূর্তি ভেজাল ও বিষাক্ত আইসবারে সয়লাব গৌরীপুরের পাড়া-মহল্লা কুষ্টিয়ায় একই পরিবারের ৩ জনকে প্রকাশ্যে গুলি করে হত্যা আজ ছয় লাখ ডোজ টিকা নিয়ে ফিরবে বিমান বাহিনীর ২ বিমান ময়মনসিংহে বস্তিতে অগ্নিকান্ড, আগুন থেকে শতাধিক ঘর রক্ষা করল বৃষ্টি নীলফামারীতে শুরু হলো দশদিন ব্যাপী হ্যান্ডবল প্রশিক্ষণ

সিনহা হত্যা মামলায় নজর রাখতে বলল সংসদীয় কমিটি

নিজস্ব প্রতিবেদক,

দেশজুড়ে আলোচিত অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা মোহাম্মদ রাশেদ খান হত্যাকাণ্ডের বিচার প্রক্রিয়ায় সরকারকে নজর রাখতে বলেছে প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় কমিটি। যাতে হত্যাকাণ্ড নিয়ে কেউ কোনো ধরনের ফায়দা নিতে না পারে।

বুধবার সংসদীয় কমিটির বৈঠকে এ নিয়ে আলোচনা হয়। আলোচিত ওই ঘটনা নিয়ে প্রতিবেদন দেয় প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়। বৈঠকে বিষয়টি আলোচ্যসূচিতে না থাকলেও এ নিয়ে কথা বলেন কমিটির সদস্য অবসরপ্রাপ্ত সেনা কর্মকর্তা মুহাম্মদ ফারুক খান।

বৈঠক শেষে সংসদীয় কমিটির সদস্য ফারুক খান বলেন, ‘কমিটিতে এ নিয়ে আলোচনা উঠলে আজ আমি বলেছি এই বিচার কাজ সার্বক্ষণিক মনিটর করতে হবে। কেউ যাতে এ থেকে ফায়দা লুটতে না পারে। মন্ত্রণালয় আমাদের জানিয়েছে, এ ঘটনার বিচারে যা যা করা দরকার সব ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। মন্ত্রণালয় সবকিছু নজরে রেখেছে।’

কমিটির পরের বৈঠকে মেজর সিনহা হত্যাকাণ্ড নিয়ে একটি প্রতিবেদন দেয়ার জন্য ওই বৈঠকে সুপারিশ করা হয়।

গত ৩১ জুলাই টেকনাফের বাহারছড়া ইউনিয়নের শামলাপুর চেকপোস্টে পুলিশের গুলিতে সিনহা নিহত হওয়ার পর একে ‘বন্দুকযুদ্ধের’ ঘটনা বলা হয়েছিল পুলিশের পক্ষ থেকে।

তবে অবসরপ্রাপ্ত সেনা কর্মকর্তারা সংবাদ সম্মেলন করে সেখানে কর্মরত পুলিশ সদস্যদের দায়ী করে জড়িতদের গ্রেপ্তারের দাবি জানান।

সংসদীয় কমিটির কার্যপত্র থেকে জানা গেছে, প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের প্রতিবেদনে কক্সবাজারের সাবেক পুলিশ সুপার এবিএম মাসুদ হোসেনের তৎপরতা নিয়ে প্রশ্ন তোলা হয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়, ঘটনার শুরু থেকে এসপি মাসুদ তদন্তের কাজে অসহযোগিতা ও বাধা দিয়ে আসছিলেন। এজন্য ঘটনার পরপরই সিনহার পরিবার এসপি মাসুদকে বদলির দাবি জানায়। সেনাসদরও সুষ্ঠু তদন্তের এবং ন্যায়বিচারের স্বার্থে তাকে বদলির পক্ষে বলেছিল।

এর পর সিনহার বোন পুলিশ কর্মকর্তাদের আসামি করে মামলা করলে গ্রেপ্তার করা হয় টেকনাফের তখনকার ওসি প্রদীপ কুমার দাশ, বাহারছড়া পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের সাবেক পরিদর্শক লিয়াকত আলীসহ অন্য পুলিশ সদস্যদের। পরে কক্সবাজারের এসপি মাসুদকেও বদলি করা হয়।

এসপি মাসুদ তখন সাংবাদিকদের বলেছিলেন, সিনহা তার পরিচয় দিয়ে ‘তল্লাশিতে বাধা দেন’। পরে ‘পিস্তল বের করলে’ চেক পোস্টে দায়িত্বরত পুলিশ তাকে গুলি করে।

সংসদীয় কমিটিতে দেওয়া প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের প্রতিবেদনে বলা হয়, ‘সিনহাকে গুলি করার ২০-২৫ মিনিট পরে ওসি প্রদীপ ঘটনাস্থলে যায়। অত্যন্ত নির্মম ও অমানবিকভাবে পা দিয়ে চেপে মাটিতে পড়ে থাকা সিনহার মৃত্যু নিশ্চিত করে।’

সিনহা হত্যাকাণ্ডের পর সেনাপ্রধান জেনারেল আজিজ আহমেদ ও পুলিশপ্রধান বেনজীর আহমেদ কক্সবাজার গিয়ে এক সঙ্গে সংবাদ সম্মেলন করে বলেছিলেন, এই ঘটনায় দুই বাহিনীর সম্পর্কে কোনো প্রভাব পড়বে না। এতে জড়িতদের শাস্তি নিশ্চিত করা হবে।

সংসদীয় কমিটির সভাপতি মোহাম্মদ সুবিদ আলী ভূঁইয়ার সভাপতিত্বে বৈঠকে কমিটির সদস্য ফারুক খান, ইলিয়াস উদ্দিন মোল্লাহ, মোতাহার হোসেন, মো. নাসির উদ্দিন, মহিবুর রহমান ও নাহিদ ইজাহার খান অংশ নেন।




আপনার মতামত লিখুন :

এক ক্লিকে বিভাগের খবর