জমি বিরোধের জেরে’ কলেজছাত্রীকে অ্যাসিড নিক্ষেপ

0

ভোলা প্রতিনিধি :

ভোলার চরফ্যাশন উপজেলায় এক কলেজছাত্রীকে অ্যাসিড নিক্ষেপ করেছে দুই দুষ্কৃতকারী। বৃহস্পতিবার রাত ৮টার দিকে উপজেলার আবদুল্লাহপুর ইউনিয়নের দক্ষিণ শিবা গ্রামে তার নিজ বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে।

জমিজমার বিরোধকে কেন্দ্র করে দুষ্কৃতকারীরা এ কাজ করেছে বলে দাবি ভুক্তভোগী পরিবারের। এ ঘটনায় ওই কলেজছাত্রীর বাবা আবদুল খালেক সিকদার দুইজনকে আসামি করে থানায় মামলা করেন।ছালমা আক্তার মুন্নি নামে ওই কলেজছাত্রী বর্তমানে চরফ্যাশন উপজেলা স্বাস্থ্যকমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন আছেন।

পুলিশ ও আহতের পরিবার জানায়, চরফ্যাশনের রহিমা ইসলাম ডিগ্রি কলেজের স্নাতক দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্রী ছালমা নিজ বাড়ির বারান্দার পড়ার রুমে খাটে শুয়ে ছিলেন। এসময় ঘরের খোলা জানালা দিয়ে ইনজেকশনের সিরিঞ্জ দিয়ে একই এলাকার বেলায়েত হোসেন তোতা ও হানিফ মাঝি তার উপর অ্যাসিড নিক্ষেপ করে। এতে মুন্নির মুখের ডান পাশের বেশকিছু অংশ ক্ষতিগ্রস্ত হয়।

গায়ে শীতের কাপড় ও লেপ মোড়ানো থাকায় শরীরের অন্যান্য অংশ রক্ষা পায়। অ্যাসিড মুখে লাগার সঙ্গে সঙ্গে মুন্নি চিৎকার করে উঠলে বাড়ির অন্যান্য লোকজন বেরিয়ে এসে বেলায়েত ও হানিফকে পালিয়ে যেতে দেখেন। পরে তাৎক্ষণিক মুন্নিকে চরফ্যাশন উপজেলা স্বাস্থ্যকমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। ঘটনার পর রাতেই মুন্নির বাবা অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে মামলা করেন।

ছালমার বাবা জানান, আবদুল্লাহপুরের মিনা বাজারে দোকান ঘরের ভিটি নিয়ে আসামিদের সঙ্গে তার দীর্ঘদিন বিরোধ চলছে। আদালতে মামলা মোকদ্দমাও ছিল। মুন্নির গায়ে শীতের পোশাক থাকায় অল্পতে রক্ষা পেয়েছে। না হলে আরো বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হত বলেও তিনি দাবি করেন। এছাড়াও বেলায়েত ও হানিফ এলাকায় নানা অপকর্মের সঙ্গে জড়িত বলেও অভিযোগ করেন মুন্নির বাবা।

চরফ্যাশন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মনির হোসেন জানান, এ মামলার আসামিদের গ্রেপ্তারে পুলিশ চেষ্টা চালাচ্ছে।

%d bloggers like this: