ঢাকা ২৯.৯৯°সে ১৩ই জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

প্রধান শিক্ষিকাকে মারধরের ঘটনায় মামলা, গ্রেফতার-১

ময়মনসিংহের গফরগাঁয়ে স্কুল পরিষ্কার করতে বলায় প্রধান শিক্ষিকাকে মারধর করার ঘটনায় ভাইসহ দফতরির নামে মামলা হয়েছে।

মামলার আসামিরা হলেন, বারইহাটি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দফতরি মো. রাকিব খান (২৮) ও তার বড় ভাই মো. নাদিম খান (৩৪)। তারা বারইহাটি গ্রামের মৃত আলাল উদ্দিনের ছেলে।

শুক্রবার (২৮ মে) দুপুর ২টায় ভুক্তভোগী প্রধান শিক্ষিকা নিলুফা খানম বাদী হয়ে দফতরি মো. রকিব খান ও বড় ভাই নাদিম খানকে আসামি করে মামলা করেন।

পাগলা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রাশেদুজ্জামান খান বিষয়য়টি নিশ্চিত করেন।

তিনি বলেন, এ ঘটনায় সকালে মো. রকিব খানকে আটক করা হয়। এখন তাকে গ্রেফতার দেখানো হয়েছে। তার বড় ভাই নাদিম খানকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে। শনিবার (২৯ মে) রকিবকে আদালতে পাঠানো হবে।

প্রাথমিক বিধ্যালয় সূত্রে জানা যায়, মো. রকিব খান বারইহাটি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে অস্থায়ী ভিত্তিতে কাজ করতেন। তাকে কর্মস্থল থেকে বাদ দেয়ার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। যেহেতু ঘটনাটি প্রকাশ্যে ঘটেছে, তাই এ বিষয়ে তদন্ত করার প্রয়োজন নেই।

এর আগে বৃহস্পতিবার (২৭ মে) দুপুরে ময়মনসিংহের গফরগাঁওয়ের বারইহাটি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক নীলুফা খানম স্কুলে ডাকেন দফতরি রাকিবকে। এসময় তাকে শ্রেণিকক্ষ পরিষ্কার করতে বলেন তিনি।

এসময় রাকিব ক্লাসরুম পরিষ্কার করতে অপারগতা প্রকাশ করেন। বন্ধে কোনোরকম কাজ করতে পারবেন না বলে জানিয়ে দেন প্রধান শিক্ষক নিলুফাকে। একপর্যায়ে স্কুলের মাঠেই প্রধান শিক্ষককে মারধর করেন দফতরি।




আপনার মতামত লিখুন :

এক ক্লিকে বিভাগের খবর