ঢাকা ২৯.৯৯°সে ১২ই জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

এক মাসে প্রবাসীরা পাঠিয়েছেন সাড়ে ১৮ হাজার কোটি টাকা

করোনা মহামারির মধ্যে দেশে অর্থনীতির চাকা অনেকটা সচল রেখেছে প্রবাসী বাংলাদেশিরা। করোনাকালেও মে মাসে রেমিটেন্স পাঠানোর ক্ষেত্রে নতুন রেকর্ড সৃষ্টি করেছেন তারা। সদ্য গত হওয়া মে মাসে প্রবাসী বাংলাদেশিরা ২১৭ কোটি ১১ লাখ মার্কিন ডলার রেমিট্যান্স পাঠিয়েছেন। বাংলাদেশি মুদ্রায় যার পরিমাণ প্রায় সাড়ে ১৮ হাজার কোটি টাকা।

মঙ্গলবার বাংলাদেশ ব্যাংকের হালনাগাদ প্রতিবেদন অনুযায়ী, মে মাসে প্রবাসীরা পাঠিয়েছেন ২১৭ কোটি ১১ লাখ মার্কিন ডলার। প্রতি ডলার ৮৫ টাকা হিসাবে বাংলাদেশি টাকায় এর পরিমাণ দাঁড়ায় ১৮ হাজার ৪৫৪ কোটি টাকা।

বাংলাদেশ ব্যাংক বলছে, গত বছরের মে মাসের তুলনায় এবারের মে মাসে প্রবাসীরা ৪৪ শতাংশেরও বেশি রেমিটেন্স পাঠিয়েছেন। গত বছর মে মাসে রেমিট্যান্স এসেছিল ১৫০ কোটি ৪৬ লাখ ডলার।

এর আগে গত এপ্রিল মাসে প্রবাসীরা রেমিট্যান্স পাঠিয়েছেন ২০৬ কোটি ৭০ লাখ ২০ হাজার মার্কিন ডলার। যা আগের বছরের এপ্রিলের তুলনায় প্রায় ৯৭ কোটি ডলার বেশি।

কেন্দ্রীয় ব্যাংকের তথ্য অনুযায়ী, ২০১৯-২০ অর্থবছরে এক হাজার ৮২০ কোটি ডলার আয় পাঠান প্রবাসীরা। আর ২০১৮-১৯ অর্থবছরে দেশে প্রবাসী আয় এসেছিল এক হাজার ৬৪২ কোটি ডলার।

এদিকে রেমিটেন্সের ওপর ভর করে বাংলাদেশ ব্যাংকের বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভ নতুন উচ্চতায় পৌঁছেছে। গত ২ মে প্রথম বার রিজার্ভ ৪৫ বিলিয়ন ডলারের ঘর অতিক্রম করে। মাঝখানে কিছুটা কমার পর আবার বাড়তে বাড়তে এখন ৪৫ বিলিয়ন ডলারের ওপরেই অবস্থান করছে রিজার্ভ। মঙ্গলবার দিনশেষে রিজার্ভের পরিমাণ দাঁড়িয়েছে ৪৫ দশমিক ০৫ বিলিয়ন ডলার।




আপনার মতামত লিখুন :

এক ক্লিকে বিভাগের খবর