loading...

বারান্দায় উদ্দাম যৌনতায় মেতে যুগলের পরিণতি

0

খোলা বারান্দায় দাঁড়িয়ে উদ্দাম যৌনতায় মেতে উঠেছিলেন দুজনে। নগ্ন, কামাতুর তরুণ-তরুণীর চিৎকারে ভ্রূ কুঁচকেছিলেন প্রতিবেশীরা। তবে তাতে কোনো মাথাব্যথা ছিল না যুগলের। কিন্তু মধ্যরাতে আচমকাই বেসামাল হয়ে বারান্দা থেকে পড়ে যান তারা। পরদিন সকালে রক্তাক্ত অবস্থায় প্রতিবেশীরা তাদের দেখতে পান। পুলিশ ওই যুগলের নগ্ন দেহ উদ্ধারের পর ময়নাতদন্তে পাঠিয়েছে।

বাড়িতে বন্ধুদের নিয়ে একটি পার্টি আয়োজন করেছিলেন ইকুয়েডরের বাসিন্দা এক যুবক ও যুবতী। তাতে উপস্থিত ছিল প্রায় ঘনিষ্ঠ সবাই। হই হুল্লোড়, খাওয়া-দাওয়া সবই হয় পার্টিতে। মদ্যপানও বাদ যায়নি। নেশাতুর অবস্থায় পার্টির আয়োজক ওই যুবক-যুবতী যৌনতায় মেতে ওঠে। ঘরের ভিতর উদ্দাম যৌনতার পর বারান্দায় চলে যায় দুজনে। সেখানেই নগ্ন অবস্থায় শরীরী খেলায় মাতে তারা। তাদের কামাতুর চিৎকারে গভীর রাতে আশেপাশের লোকজনের ঘুম ভেঙে যায়। জানালা খুলে উঁকি দিয়ে বারান্দায় আপত্তিকর অবস্থায় দেখেন তাদের। এভাবে প্রায় গোটা রাত কেটে যায়।

পরদিন সকালে ঘুম থেকে উঠে অবাক হয়ে যান প্রতিবেশীরা। তারা দেখেন বারান্দা থেকে নিচে মাটিতে পড়ে রয়েছেন ওই প্রেমিক-প্রেমিকা। দুজনের শরীর ভেসে যাচ্ছে রক্তে। কারও গায়ে একটিও পোশাক ছিল না। পুলিশ সূত্রে খবর, ওই নারী বিবাহিত। তার বছর-আটেকের একটি সন্তানও রয়েছে। তবে যুবক বিবাহিত নয় বলে দাবি তদন্তকারীদের। স্থানীয়রা তাদের এক জোড়া জুতো উদ্ধার করেছে। কিছু জামাকাপড়ও উদ্ধার হয়েছে ওই যুবক-যুবতীর। ওই তরুণ-তরুণীর মৃত্যু নিছকই দুর্ঘটনা নাকি এর নেপথ্যে অন্য কোনো কারণ রয়েছে, তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ।

loading...
%d bloggers like this: