loading...

পূর্বধলায় মধ্যেযুগীয় কায়দায় ছাত্রলীগ নেতার মাথা ন্যাড়া করলো এমপি সমর্থকরা

0

পূর্বধলা প্রতিনিধিঃ

নেত্রকোনার পূর্বধলা উপজেলায় ছাত্রলীগ নেতার মাথার চুল প্রকাশ্যে পুলিশের সামনেই ন্যাড়া করে দিল সরকার দলীয় এমপি সমর্থকরা।প্রতিহিংসার শিকার ছাত্রলীগ নেতা পূর্বধলা ৫ আসনের আওয়ামীলীগ থেকে মনোনয়ন প্রত্যাশী ইঞ্জিনিয়ার তুহিন আহম্মদ খানের সমর্থক স্বপন চন্দ্র দাস। সে পূর্বধলা উপজেলা বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় এলাকার বাসিন্দা এবং পূর্বধলা ডিগ্রি কলেজ ছাত্রলীগের উপ-সম্পাদক।

গত ১৮ ই মে শুক্রবার বিকালে লন্ডন প্রবাসী ইঞ্জিনিয়ার তুহিন আহম্মদ খানের আয়োজনে ডাকা ইফতার পার্টিতে যোগ দেওয়ার সময় চৌরাস্তা বাজার নামক স্হানে এ ঘটনাটি ঘটে।এ সময় তার সাথে অারও ৭/৮ জন ছাত্রলীগের কর্মী জীবন বাঁচাতে অটো রিক্সা থেকে দৌড়ে পালিয়ে যায় এবং প্রকাশ্যে পুলিশের সামনেই তাকে ধরে মধ্যযুগীয় কায়দায় তার চুল ক্ষুর দিয়ে ছেঁটে ফেলে।এ সময় ঘটনাস্হলের পাশেই পুলিশ টহল থাকলেও পুলিশ কোন ধরনের ব্যবস্হা গ্রহন করে নাই বলে জানান এই ছাত্রলীগ নেতা।

পুলিশ সুপার বরাবর লিখিত অভিযোগে তিনি বলেন, এমপি মহোদয়ের ছত্রছায়ায় থাকা উপজেলা আ,লীগ নেতা মাসুদ আলম টিপু, নুরুল আমিন শওকত, বিপুল, আবদুল মোমেনরা আমাদের পথ রোধ করে দাড়ায় এবং আমার শরীরে বিভিন্ন স্হানে শারীরিক ও মানসিকভাবে নির্যাতন করে।পরে সন্ত্রাসীরা আমার মাথার চুল কেটে ন্যাড়া করে দেয় এবং হুমকি দেয় যে এর পর যদি আর তুহিনের সাথে দেখি তাহলে মেরে বস্তায় ভরে মাছের খাবার বানিয়ে পাঠিয়ে দেব।

চৌরাস্তা বাজারের নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক স্থানীয় কয়েকজন দোকানদার বলেন, পবিত্র রমজান মাসের ১ম দিনই এমপির লোকেরা লোকজনকে রাস্তায় আটকিয়ে মারধর করে ও একটা ছেলের মাথা ন্যাড়া করে দেয় পুলিশ তাকিয়ে দেখেও কিছু বলে নি। দোকানদার আরও বলেন আমরা ভয়ে কিছু বলিনি যদি আমাদের দোকান ভাংচুর করে।

মাথা ন্যাড়ার বিষয়ে জানতে চাওয়া হলে পুলিশ সুপার জয়দেব চৌধুরী বলেন, অভিযোগটি আমিও শুনেছি, কাগজ হাতে পেলে প্রয়োজনীয় ব্যাবস্হা নেয়া হবে।
Attachments area

loading...