loading...

স্কুল ছাত্রী অপহরণের চেষ্টার মামলায় এক ব্যক্তির যাবজ্জীবন

0
শেখ আমিনুর হোসেন,সাতক্ষীরা ব্যুরো চীফঃ
সাতক্ষীরায় স্কুল ছাত্রী অপহরণের চেষ্টার মামলায় আব্দুস সোবহান ঢালী (২৭) নামে এক ব্যক্তিকে যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদন্ড ও ৫০ হাজার টাকা জরিমানা, অনাদায়ে আরও ৬ মাসের কারাদন্ড দেওয়া হয়েছে। সাজাপ্রাপ্ত আব্দুস সোবহান ঢালী জেলার শ্যামনগর উপজেলার চালতেঘাটার আব্দুর রহমান ঢালীর ছেলে। বুধবার দুপুরে সাতক্ষীরা নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক হোসনে আরা আক্তার এ রায় ঘোষণা করেন।

মামলার বিবরণে জানা যায়, ২০০৮ সালের ৪ নভেম্বর সকাল সাড়ে ৯টার দিকে সাতক্ষীরা পৌরসভার বাঁকাল বারুইপাড়া এলাকার আশরাফ আলী কারিকরের মেয়ে নবম শ্রেনীর স্কুল ছাত্রী সাজিদা খাতুন (১৪) স্কুলে যাওয়ার পথে প্রাইভেট কার যোগে অপহরণ করে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে আব্দুস সোবহান ঢালী। পথিমধ্যে এলাকাবাসী মেয়েটির আত্নচিৎকার শুনে প্রাইভেট কারের গতিরোধ করে তাকে উদ্ধার করেন ও অপহরনকারী আব্দুস সোবহানকে পুলিশে সোপর্দ করেন। এ ঘটনায় ওই ছাত্রীর বাবা বাদী হয়ে আসামী আব্দুস সোবহানের বিরুদ্ধে একটি অপহরণ মামলা দায়ের করেন। দীর্ঘদিন কারাভোগের পর আসামী আব্দুস সোবহান আদালত থেকে জামিনে মুক্তি পাান।
এ মামলায় ৫ জন স্বাক্ষীরা সাক্ষ্য গ্রহণ ও নথি পর্যালোচনা করে আসামির বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগ প্রমানিত হওয়ায় আদালত তাকে যাবজ্জীবন কারাদন্ড ও ৫০ হাজার টাকা জরিমানা, অনাদায়ে আরও ছয় মাসের কারাদন্ডের আদেশ দেন আদালত। তবে, এ রায়ের সময় আসামী পলাতক ছিলেন। এ মামলার রাষ্ট্র পক্ষের আইনজীবি সাতক্ষীরা নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিশেষ পিপি অ্যাডভোকেট জহুরুল হায়দার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

loading...